আবুল হোসেন, রাজবাড়ী প্রতিনিধি : রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলার দৌলতদিয়া ইউনিয়ন যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মো. জুলহাস মোল্লাকে (৪০) তার দলীয় পদ থেকে সাময়িক  বহিষ্কার করা হয়েছে।
      শুক্রবার দুপুরে  (১৭ সেপ্টেম্বর) গোয়ালন্দ উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের সভাপতি ইউনুস হোসেন মোল্লা  ও  সাধারণ সম্পাদক রফিকুল ইসলাম সালু যৌথ স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিত করেন।
  বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে,  দৌলতদিয়া ইউনিয়ন যুবলীগ ইতিপূর্বে জুলহাস মোল্লার প্রতি অনাস্থা এনেছে। এছাড়া তার বিরুদ্ধে   পরিবহনে চাঁদাবাজি, অসামাজিক কার্যকলাপে লিপ্ত থাকা ও দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগ রয়েছে। এ জন্য গোয়ালন্দ উপজেলা যুবলীগ এক জরুরি সিদ্ধান্তে  তাকে তার দলীয় পদ থেকে সাময়িক বহিষ্কার করেছে।
 এ প্রসঙ্গে বহিস্কৃত সাধারন সম্পাদক জুলহাস মোল্লা দাবি করেন, বহিষ্কারের বিষয়ে তিনি কোন পত্র পাননি। তার বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ গুলোর বিষয়ে তাকে কোনরুপ শোকজও করা হয়নি । তার বহিষ্কার অগঠনতান্ত্রিক ভাবে করা হয়েছে।অভিযোগগুলো  সম্পূর্ণ মিথ্যা।
  এ বিষয়ে গোয়ালন্দ উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের সভাপতি ও রাজবাড়ী জেলা পরিষদ সদস্য মো. ইউনুছ মোল্লা বলেন, কেন্দ্রীয় যুবলীগের ভিশন বাস্তবায়নের দৌলতদিয়া ইউনিয়ন যুবলীগের অনাস্থা,  পরিবহনে চাঁদাবাজি, যৌনপল্লতে অসামাজিক কার্যকলাপে লিপ্ত থাকা ও দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগে মো. জুলহাস মোল্লাকে বহিস্কার করা হয়েছে। উল্লখ্য তার বিরুদ্ধে দৌলতদিয়া ঘাটে পন্যবাহী পরিবহনে চাঁদাবাজি, দৌলতদিয়া যৌনপল্লীতে  নারী ব্যবসা করা, নিয়মিত মাদক গ্রহনসহ বিভিন্ন অসামাজিক কার্য কলাপের অভিযোগ রয়েছে। এ সকল বিষয়ে আমি তাকে ইতিপূর্বে অনেকবার সতর্ক করেছি। কিন্তু সে কোন কর্ণপাত করেনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.