মেজবা উদ্দিন পলাশ : কুষ্টিয়া-ঝিনাইদহ মহাসড়কের কুষ্টিয়ার জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সামনের সড়কে পুলিশ ও ছাত্রদল নেতাকর্মীদের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টাধাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এতে ছাত্রদলের ৫ জনকে আটক করেছে পুলিশ। সোমবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে এ সংঘর্ষের ঘটনায় পুলিশসহ কয়েকজন আহত হয়েছেন।
ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা পূর্ব ঘোষণা বা পুলিশের অনুমতি ছাড়াই কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের নতুন কমিটি হওয়ায় জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সামনের সড়ক অবরোধ করে আনন্দ মিছিল বের করে। এতে পুলিশ বাঁধা দিলে ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা পুলিশকে লক্ষ করে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে। এতে শুরু হয় ধাওয়া-পাল্টাধাওয়া। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে লাঠিচার্জ করে পুলিশ। এসময় ছাত্রদলের ৫জন নেতাকর্মীকে আটক করেছে বলে পুলিশের দাবি।
কুষ্টিয়া মডেল থানার (ওসি) সাবিব্বরুল আলম বলেন,কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের নতুন কমিটি হওয়ায়
পূর্ব ঘোষণা বা অনুমতি ছাড়াই হঠাৎ করে ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা কুষ্টিয়া-ঝিনাইদহ মহাসড়কের কুষ্টিয়ার জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সামনের সড়ক অবরোধ করে আনন্দ মিছিল বের করে। এতে যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায় এবং সেখানে থাকা পুলিশ সদস্যরা তাদের মিছিল করতে নিষেধ করেন। কিন্তু তারা কোনো কথা না শুনে বিভিন্ন দিক থেকে পুলিশের ওপর ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে। এতে পুলিশসহ কয়েকজন আহত হয়েছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে লাঠিচার্জ করে পুলিশ। এসময় ছাত্রদলের ৫জন নেতাকর্মীকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে।
অপরদিকে কুষ্টিয়া জেলা ছাত্রদলের আহ্বায়ক কমিটির সদস্য সচিব খন্দকার তসলিম উদ্দিন নিশাতের সঙ্গে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন,কোনো কারণ ছাড়াই পুলিশ ছাত্রদলের নেতাকর্মীদের ওপর হামলা চালিয়েছে। আমরা শান্তিপূর্ণ আনন্দ মিছিল করছিলাম। এমন সময় পুলিশ আমাদের ওপর চড়াও হয়। নেতাকর্মীদের ওপর পুলিশ লাঠিচার্জ শুরু করে তাদের ছত্রভঙ্গ করে এবং ঘটনাস্থল থেকে অন্তত ১৬ জনকে আটক করে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.