মোক্তার হোসেন, পাংশা (রাজবাড়ী) প্রতিনিধি ঃ এলজিইডি পাংশার তত্ত্বাবধানে নাদুরিয়া ঘাট-লাঙ্গলবাধ বাজার নির্মাণাধীন গড়াই ব্রিজের নির্মাণ কাজ সোমবার (২৩ মে) বিকেলে পরিদর্শন করেন রাজবাড়ী জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও রাজবাড়ী-২ আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. জিল্লুল হাকিম। বীর মুক্তিযোদ্ধা জিল্লুল হাকিম এমপির সার্বিক প্রচেষ্টায় পল্লী সড়কের গুরুত্বপূর্ণ সেতু নির্মাণ শীর্ষক প্রকল্পের প্রায় ৬৩ কোটি ৯১ লাখ ৬৮ হাজার টাকা ব্যয়ে গড়াই নদীর উপর ৬৫০ মিটার দৈর্ঘ্য বিশিষ্ট ব্রিজের নির্মাণ কাজ ২০২০ সালের জুন মাসে শুরু হয়। ইতোমধ্যে নির্মাণ কাজের ৬০ ভাগ শেষ হয়েছে। ২০২৩ সালের জুন মাসে প্রকল্পের কাজ শেষ হওয়ার কথা। এ লক্ষে দ্রুত গতিতে ব্রিজের নির্মাণ কাজ পরিচালনা করছে সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান এমএম বিল্ডার্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ার্স লিমিটেড।

ব্রিজের নির্মাণ কাজ পরিদর্শনে সন্তোষ প্রকাশ করে বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. জিল্লুল হাকিম এমপি বলেন, রাজবাড়ীর পাংশা উপজেলা, ঝিনাইদহের শৈলকুপা উপজেলা ও মাগুড়ার শ্রীপুর উপজেলার জনসাধারণের আকাঙ্খা বাস্তবায়িত হতে চলেছে। এই ব্রিজের নির্মাণ কাজ শেষ হলে অত্র এলাকার মানুষের অর্থনৈতিক ও সামাজিক উন্নয়নের নতুন দিগন্ত উন্মোচিত হবে। তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার মানেই দেশের উন্নয়ন ও দেশবাসীর কল্যাণ। বিগত বিএনপির সরকারের সমালোচনা করে জিল্লুল হাকিম এমপি বলেন, বিএনপি সরকারের সময়ে সন্ত্রাস, খুন, রাহাজানী, চুরি, ছিনতাই বেড়ে যায়। মানুষ অতিষ্ঠ হয়ে ওঠে। জনগণ ভোটের মাধ্যমে বিএনপিকে প্রত্যাখ্যান করে আওয়ামী লীগকে ভোট দিয়ে ক্ষমতায় বসিয়েছে। শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আওয়ামী লীগ সরকার রাস্তাঘাট, ব্রিজ, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানসহ সার্বিক উন্নয়ন করছে। বয়স্কভাতা, মাতৃত্বকালীন ভাতা, বিধবাভাতা, ভিজিডি-ভিজিএফ, ভূমিহীন ও গৃহহীনদের জন্য গৃহ নির্মাণসহ জনকল্যাণমূলক নানাবিধ প্রকল্প চালু করেছে। দেশের মানুষ আজ শান্তিতে আছে। উন্নয়নের ধারাবাহিকতা রক্ষায় আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকায় ভোট দিয়ে শেখ হাসিনাকে পুনরায় ক্ষমতায় বসানোর গুরুত্বারোপ করেন তিনি।

আয়োজিত অনুষ্ঠানে পাংশা উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মাদ আলী, ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের পরিচালক নূর উদ্দিন বাবুল, পাংশা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও মাছপাড়া ইউপির চেয়ারম্যান খোন্দকার সাইফুল ইসলাম (বুড়ো), পাংশা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি একেএম শফিকুল মোরশেদ আরুজ ও কশবামাজাইল ইউপির চেয়ারম্যান শাহরিয়ার সুফল মাহমুদ প্রমূখ বক্তব্য রাখেন। উপস্থাপনা করেন কশবামাজাইল ইউপি আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মশিউর রহমান পিল্টু জোয়ার্দ্দার।

অনুষ্ঠানে মিসেস সাইদা হাকিম, পাংশা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. আব্দুল ওহাব মন্ডল, পাংশা উপজেলা আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক লাবলু বিশ্বাস, পাংশা পৌরসভা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও পাংশা পৌরসভার প্যানেল মেয়র ওদুদ সরদার, পাংশা উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান ও পাংশা উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক জালাল উদ্দিন বিশ্বাস, পাংশা উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মো. শাহিদুল ইসলাম মারুফ, বিভিন ইউপির চেয়ারম্যান, আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.